বাহুবলে যানজটে জনদুর্ভোগ চরমে; প্রশাসন নির্বিকার

একুশে জার্নাল

একুশে জার্নাল

January 14 2020, 11:55

শাহ মোহাম্মদ দুলাল আহমেদ, হবিগঞ্জ প্রতিনিধি: যানজট যেন বাহুবল উপজেলার সর্বস্তরের নিত্যদিনের সঙ্গী। হবিগঞ্জের বাহুবল বাজারের প্রধান সড়ক যেন যাহবাহনের জটলা নিয়তি হয়ে দাঁড়িয়েছে এলাকাবাসীর কাছে। সরেজমিন ঘুরে দেখা গেছে, করাঙ্গী ব্রিজ থেকে বাহুবল মডেল থানার সামনে হবিগঞ্জ সি.এন.জি স্ট্যান্ডের উত্তর পাশ পর্যন্ত মধ্যবর্তী প্রায় এক হাজার গজ প্রধান সড়কে রিক্সা, সিএনজি, লেগুনা, মোটর সাইকেল, যত্রতত্র যাত্রী উঠানামা ওপার্কিং করার ফলে যানজটের সৃষ্টি হচ্ছে।

এছাড়াও এ প্রধান সড়কের ধারে ফুটপাত ও ভাসমান অবৈধ দোকানীরা দাঁড়িয়ে ব্যবসা করে আসছে। এর ফলে যানবাহনের যানজট প্রতিমুহুর্তে সৃষ্টি হচ্ছে। গত এক সপ্তাহ যাবত ভোর থেকেই শুরু হয় যানবাহনের মহা জটলা! থাকে ঘন্টার পর ঘন্টা। এতে উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে আগত শিক্ষার্থী ও কর্মব্যস্ত লোকেরা চরম ভোগান্তিতে পড়েন।

সোমবার (১৩ জানুয়ারি) বিকেল ৩টায় শুরু হয় যানবাহনের প্রখর জ্যাম। জ্যাম চলাকালীন সময় ছুটি হয় বাহুবল ঐতিহ্যবাহী শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান দীননাথ ইন্সটিটিউশন সাতকাপন সরকারী মডেল হাইস্কুলের। শিক্ষার্থীদের চাপে জ্যাম তখন প্রচণ্ড রূপ নেয়। এতে আটকা পড়ে কয়েক শত ছাত্রছাত্রী। প্রায় দুই ঘণ্টা পর যানবাহনের জটলা স্বাভাবিক পর্যায়ে আসে।

জ্যামে আটকে পড়া কয়েকজন যাত্রীর সাথে আলাপ করলে তাঁরা জানান, যত্রতত্র গাড়ী পার্কিং এবং শৃঙ্খলাবদ্বভাবে যানবাহন না রাখার ফলে এ যানজট সৃষ্টি হয়ে আসছে।

যানজট নিরসনে উপজেলা প্রশাসন নির্বিকার। তবে দীর্ঘ দিন বাহুবল বাজারের যানজট নিরসনে উপজেলা প্রশাসন লজিষ্টিক ভূমিকা রাখলেও সময় এবং ব্যক্তির পরিবর্তনে কাজেও ভিন্নতা আসে। ২০১৭ সালের ১৯ জুলাই তৎকালীন উপজেলা নির্বাহী অফিসার জসিম উদ্দিনের (বর্তমানে সিলেট সিটি কর্পোরেশনের প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা) পরিকল্পনায় এ সড়কের যানজট নিরসন হয়। তখন সিদ্ধান্ত নেয়া হয় যে, বাজারের প্রধান সড়কে কোন যানবাহনে যাত্রী উঠানামা করতে পারবে না। তার নির্বাহী কার্যক্রমে নিরসন হয় বাহুবলের প্রত্যাশিত যানজট। লাঘব হয় বাহুবলবাসীর ভোগান্তি। কিন্ত ইদানীং দেখা যাচ্ছে বাহুবল বাজারের চিত্র ভিন্ন! রাতদিন প্রতি মুহুর্তই যানজট। এ যেন বাহুবল নয়, দেখে মনে হয় ঢাকার কোন শহর। এতেও প্রশাসন  নির্বিকার। সোমবার উপজেলার সচেতন কয়েকজন নাগরিক বাহুবলের নিত্যদিনের এ বিরামহীন যানজট স্থায়ীভাবে নিরসনের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে উপজেলা প্রশাসন বরাবরে দাবী জানান।