গোলাপগঞ্জ উলামা কাউন্সিল ইউকের ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্ঠিত

একুশে জার্নাল

একুশে জার্নাল

জুন ১২ ২০১৯, ১৪:২৪

“সাম্যের সমাজ গঠনের মধ্যেই ঈদের প্রকৃত আনন্দ নিহিত”

রহমত, মাগফিরাত ও নাজাতের সওগাতে ভরপুর মহিমান্বিত রমজানুল মোবারকের পর আল্লাহ সুবহানাহু ওতায়ালা মাগফিরাতের পুরস্কার দিয়ে ঈদের দিনে আনন্দিত করেন। ঈদের আনন্দ যাতে ধনী গরীব সমান ভাবে উপভোগ করতে পারে মনবতার নবী মুহাম্মাদ (সাঃ) সেই জন্য ধনীদের ফিতরা প্রদান ওয়াজিব করেছেন।

গত ১১ জুন ২০১৯ ইস্ট লন্ডন বাইতুল মামুর সেন্টারে গোলাপ গঞ্জ উলামা কাউন্সিল ইউকে কর্তৃক আয়োজিত ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানে আলোচকবৃন্দ উপরোক্ত কথা বলেন।

উলামা কাউন্সিল ইউকের সভাপতি মাওলানা সাদিকুর রহমানের সভাপতিত্বে সেক্রেটারী জেনারেল মাওলানা মুহাম্মাদ আতাউর রহমানের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত ঈদ অনুষ্ঠানে আলোচনায় অংশ গ্রহণ করেন সহসভাপতি সর্বজনাব মাওলানা শওকত আলী, হাফিজ মাওলানা হুসাইন আহযদ, মাওলানা ময়নুল ইসলাম। হাফিজ মাওলানা মাহমুদুল হাসানের কুরআন তিলাওয়াতের মন্য দিয়ে অনুষ্ঠিত ঈদ অনুষ্ঠানে অন্যান্য কর্মসূচীর মধ্যে ছিল হামদ, ছোটবেলায় আমার ঈদ, স্মরণীয় ঈদ অভিজ্ঞতা।

উপরোক্ত কর্মসূচীর বিভিন্ন পর্বে অংশ গ্রহণ করে যারা অনুষ্ঠানকে আনন্দঘন করে তুলেছিলেন তারা হলেন যথাক্রমে উলামা কান্সিল ইউকের ট্রেজারার মাওলানা আব্দুল খালিক সাহেদ,প্রচার সম্পাদক হাফিজ মাওলানা ইমদাদুর রহমান, হাফিজ মুহাম্মাদ আলী, মাওলানাজইন উদ্দীন, মাওলানা মুহিবুর রহমান, মাওলানা এখলাছুজ্জামান, আমজাদ হোসাইন, হাফিজ আখলাক আহমদ, হাফিজ মাওলানা মহসীন, মাওলানা গোলাম কিবরিয়া, জসীমউদ্দিন প্রমুখ।

আলোচকবৃন্দ আরো বলেন, ঈদের শিক্ষা কে আমাদের দৈনিন্দন কাজে লাগিয়ে বৈষম্যহীন সমাজ প্রতিষ্ঠা করতে পারলে ঈদের প্রকৃত স্বাদ পাওয়া যাবে। পরিশেষে মোনাজাত ও দুপুরের খাবার পরিবেশনের মধ্য দিয়ে ঈদ অনুষ্ঠান সমাপ্ত হয়।